‘উঠতি বয়সী মেয়েদের নিয়ে ডিজে পার্টি করতো নাসির’

জনপদ ডেস্কঃ চিত্রনায়িকা পরীমণিকে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার মামলায় গ্রেফতার হওয়া আসামী, আবাসন ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ উঠতি বয়সী মেয়েদের নিয়ে ডিজে পার্টি করতো বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) যুগ্ম-কমিশনার হারুন অর রশীদ।

সোমবার (১৪ জুন) নাসির উদ্দিন মাহমুদকে উত্তরা থেকে গ্রেপ্তার করে মিন্টু রোডে অবস্থিত ডিবি কার্যালয়ে আনার পর গণমাধ্যমের সামনে এই তথ্য জানান যুগ্ম-কমিশনার।

হারুন অর রশীদ বলেন, ‍“গতকাল পরীমণি মিডিয়ার সামনে এসে নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও অমির বিরুদ্ধে নির্যাতন ও গায়ে হাত দেওয়ার অভিযোগ করেছেন। তিনি পুলিশের কাছেও অভিযোগ করার কথা বলেছেন। সেই প্রেক্ষিতে আমরা তদন্তে নেমে রাজধানী উত্তরার ৪ নম্বর সেক্টরের ১২ নম্বর রাস্তায় নাসির উদ্দিন মাহমুদের বাসায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করেছি।”

উত্তরা ওই বাসা থেকে আরো তিনজন কমবয়সী নারীকেও গ্রেপ্তার করা হয়। তাদের সম্পর্কে হারুন অর রশীদ বলেন, “নাসির উদ্দিন কমবয়সী এসব নারীদের ফাঁদ হিসেবে ব্যবহার করতো। তিনি উত্তরা ক্লাবসহ বিভিন্ন জায়গায় উঠতি বয়সী মেয়েদের নিয়ে গিয়ে ডিজে পার্টির নামে সমাজের কিছু মেয়েদের নষ্ট করতো।”

ডিবির এই যুগ্ম কমিশনার আরও বলেন, ‍‍“সেদিন বোট ক্লাবে কী হয়েছে আমরা তা তদন্ত করব। পাশাপাশি নাসির উদ্দিনের বাসায় যেহেতু মাদক (বিদেশি মদ ও ইয়াবা) পাওয়া গেছে, তাই তার বিরুদ্ধে একটি মাদক মামলা করব। সেই মামলায় আমরা রিমান্ড আবেদন করব।”

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে নাসির উদ্দিন মাদকের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতার কথা স্বীকার করেছে বলে জানিয়েছেন হারুন অর রশীদ। তিনি বলেন, “নাসির উদ্দিন কোথা থেকে মাদক পেয়েছে সেটাও জানিয়েছে। আমরা আগামীকাল সেখানে যাব। তদন্ত করব। প্রয়োজনে পরীমণিকেও সেখানে নিয়ে যাবে, যেখানে ঘটনাটি ঘটেছে।”

পরীমণির করা মামলার বিষয়ে তিনি বলেন, “পরীমণির মামলাটি যেহেতু ঢাকা জেলায় হয়েছে। এ বিষয়ে তারা জিজ্ঞাসাবাদ করবে। তবে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি এই অভিযোগের বিষয়টি স্বীকার করেছেন।”

ডিজে পার্টির নামে যারা সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে তাদের বিরুদ্ধে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কঠোর ব্যবস্থা নেবে বলে জানিয়েছেন ডিবির এই যুগ্ম-কমিশনার। তিনি বলেন, ‍“আমরা মনে করি ঢাকা শহরের বিভিন্ন জায়গায় বৈধ-অবৈধ বারে ডিজে পার্টির নামে উঠতি বয়সী মেয়েরা যাচ্ছে, পরিবেশ নষ্ট করছে। আমাদের কমিশনার স্যারের নির্দেশ হচ্ছে, রাতের বেলায় কোনো উঠতি বয়সী নারী বা মেয়ে যেন কোন বৈধ বা অবৈধ বারে না যায়। সেদিকে আমরা খেয়াল রাখছি। যদি কেউ এসব নারীদের নিয়ে ডিজে পার্টির নামে সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে, তাদের বিরুদ্ধে আমরা কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।”

এর আগে ঢাকাই চলচ্চিত্রের অভিনেত্রী পরীমণির করা ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার মামলার প্রধান আসামি নাসির উদ্দিন মাহমুদসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করে ডিবি। রাজধানীর উত্তরায় নাসির উদ্দিনের বাসা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এদের মধ্যে তিনজন নারী রয়েছেন। সোমবার সকালে সাভার মডেল থানায় মামলাটি করেন পরীমণি।